1. ridowan2424@gmail.com : ridua2z :

November 27, 2020, 4:00 am

৯৯ টি মানবদেহের বিস্ময়কর ও অজানা তথ্য !!

৯৯ টি মানবদেহের বিস্ময়কর ও অজানা তথ্য !!

মানবদেহে জটিল এবং রহস্যময় প্রক্রিয়া বিদ্যমান, যা মাঝেমধ্যে সবচেয়ে দক্ষ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ও  বিজ্ঞানীদেরও বিভ্রান্ত করে ফেলে।  অনেক সময় আমাদের ধারণা, আমরা নিজেদের দেহ সম্পর্কে পুরোপুরি জানি। কিন্তু অজানা রয়েছে অনেক কিছুই।

১) মানুষের দেহের সবচেয়ে শক্তিশালী পেশি হল জিহ্বা।

২) চোখ খোলা রেখে হাঁচি দেওয়া সম্ভব নয়। হাঁচির সর্বোচ্চ গতি ঘণ্টায় ১৬০ কিলোমিটার।

৩) ১৮ বছর বয়সে মানুষের মস্তিস্কের গঠন বন্ধ হয়ে যায়। এরপর থেকে প্রায় ১ হাজার নিউরন নষ্টও হয়ে যেতে পারে। মানবদেহের মাত্র ২ শতাংশ ওজনের হলেও মস্তিস্ক শরীরের ২০ শতাংশ শক্তি ব্যবহার করে। মস্তিস্ক কখনোই বিশ্রাম করেনা, ঘুমের মধ্যেও কাজ করতে থাকে।

৪) আ্পনি যদি ৭০ বছর বেঁচে থাকেন তবে এ সময় ৩০০ কোটিবার স্পন্দিত হবে হৃদপিন্ড।

৫) আমাদের মাথার খুলি ২৬ ধরণের ভিন্ন ভিন্ন হাড় দিয়ে তৈরি।

৬) একটি চুল ঝুলন্ত আপেলের ওজন ধরে রাখতে পারে। তবে বিজ্ঞানীরা আপেলের মাত্রা নির্দিষ্ট করেন নি। 

৭) ব্যক্তির নখগুলো নরম ও ভঙ্গুর এবং চাঁদহীন হলে তা অতিরিক্ত থাইরয়েডের নির্দেশ করতে পারে।

৮) আমাদের ধারনা চার ধরণের রক্ত রয়েছে আমাদের দেহে। আসলে রক্তের ধরন ২৯ টি। তাদের মধ্যে বিরলতম হচ্ছে বোম্বাই সাব টাইপ।

৯) মানবদেহের সকল স্নায়ুর মোট দৈর্ঘ্য ৪৫ কিলোমিটার।

১০) বিশ্বের প্রায় সকল লোকের চোখের পাতায় ‘ডেমোডেক্স’ নামের একটি বিশেষ ধরনের উপাদান থাকে।

১১) আমাদের কান প্রায় অবিশ্বাস্য গতিতে জীবনব্যাপী বাড়তে থাকে। কান প্রতি বছর এক মিলিমিটারের এক চতুর্থাংশ পরিমাণ বৃদ্ধি পায়।

১২) মানবদেহ প্রতিদিন প্রায় এক মিলিয়ন ত্বকের কোষ হারিয়ে ফেলে, যার পরিমাণ বছরে ২ কিলোগ্রাম হয়। 

১৩) ছেলেদের জিহ্বার পৃষ্ঠে মেয়েদের চেয়ে স্বাদের কুঁড়ি(টেষ্ট বাট) কম থাকে।

১৪ ) একজন মানুষ তার জীবনের প্রায় পাঁচ বছর দারুন সক্রিয় থাকে। 

১৫) চোখের কর্ণিয়া মানবদেহের একমাত্র অংশ, যেখানে কোন রক্ত সরবরাহ হয়না। সরাসরি বাতাস থেকে অক্সিজেন সংগ্রহ করে কর্ণিয়া।

১৬) একটি শিশু সাত মাস বয়স পর্যন্ত একই সাথে শ্বাস গ্রহণ ও খাওয়া, দুটোই সমানভাবে করতে পারে।

১৭) মানুষের মস্তিষ্ক থেকে যে স্নায়ু তাড়না দেহের অন্য অঙ্গের উদ্দেশ্যে পাঠানো হয় তার গতি ঘণ্টায় ২৭৪ কিলোমিটার।

১৮) জিভ দেখে অনেক কিছু বুঝা যায়। জিভের নমুনা একেবারে অনন্য। তাই কাউকে জিভ দেখানোর সময় এটি মনে রাখবেন।

১৯) একটি সুস্থ হৃদপিণ্ড সারা জীবনে গড়ে ১৮২ মিলিয়ন লিটার রক্ত পাম্প করে থাকে।

২০) কোনও ব্যক্তির মুখে বিদ্যমান ব্যাকটিরিয়ার সংখ্যা পৃথিবীর মোট  লোক সংখ্যার সমান বা তারও বেশি।

২১ ) গর্ভধারণের তিন মাসের মাথায় একটি মানব ভ্রূণ তার নিজস্ব ফিঙ্গারপ্রিন্টের মালিক হয়ে যায়।

২২) মস্তিস্কের স্পন্দনের গতি ঘন্টায় প্রায়  ৪০০ কিলোমিটার। 

২৩) বাঁহাতি মানুষের তুলনায় ডান হাতি মানুষ গড়ে ৯ বছর বেশি বেঁচে থাকে।

২৪ ) মানুষ যা স্বপ্নে দেখে তার ৯০% ই ঘুম থেকে উঠে ভুলে যায়।

২৫) মাত্র একদিনে আমাদের রক্ত ​​১৯ ৩১২ কিলোমিটার দূরত্ব ‘দৌড়ায়’। 

২৬) সকালের তুলনায় সন্ধ্যায় প্রত্যেক মানুষের উচ্চতা ১ সেন্টিমিটার

রে কম থাকে।

২৭ ) একজন মানুষ প্রতিদিন প্রায় ২০০০০ বার শ্বাস নেয়।

২৮) ব্লাশ করলে নাকি লজ্জায় মুখ রাঙ্গা হয়ে ওঠে? জেনে রাখুন, মুখের সাথে সাথে আপনার পাকস্থলীও লাল হয়ে ওঠে!

২৯) মানুষের চোখ ১ কোটি পর্যন্ত নানা রংয়ের মধ্যে পার্থক্য করতে পারে। কিন্তু আমাদের মস্তিষ্ক এর সবগুলো মনে রাখতে পারে না।

৩০) মানবদেহে কম করে হলেও ৭০০ এনজাইম সক্রিয় আছে।

৩১ ) আমাদের হৃদপিণ্ড বছরে ৩৫ মিলিয়ন বার বিট দেয়। 

৩২) শুধু মানুষেরই নয়, কোয়ালাদেরও প্রত্যেকের আলাদা আলাদা ফিঙ্গারপ্রিন্ট আছে।

৩৩) আপনার ত্বকের প্রতি ১ বর্গ সেন্টিমিটারে প্রায় শতাধিক ব্যথা সংবেদক রয়েছে।

৩৪) একজন মানুষের ঘুমিয়ে পড়তে গড়ে ৭ মিনিট সময় লাগে।

৩৫) একজন ব্যক্তি তার জীবনে গড়পড়তায় প্রায় ৩৫ টন খাদ্যগ্রহণ করে।

৩৬) বিশ্বের মাত্র ৭% মানুষ বাঁ হাতি।

৩৭) আমাদের মস্তিস্কে প্রতি সেকেন্ডে ১০০০০০ রাসায়নিক বিক্রিয়া ঘটে।  

৩৮) মানবদেহে প্রায় ২ কেজি ওজনের সমপরিমাণ ব্যাকটেরিয়া থাকে।

৩৯) পুরুষদের থেকে মহিলারা প্রতিদিন বেশি চুল হারা। প্রতিদিন পুরুষেরা হারান ৪০টার মতো চুল আর মহিলারা হারান ৭০ টার মতো চুল।

৪০) পায়ের নখের চেয়ে হাতের নখ প্রায় চারগুণ দ্রুত বাড়ে।

৪১) মানবদেহের সবচেয়ে শক্তিশালী পেশি কোনটি জানেন? জিহবা।

৪২) মানুষের শরীরের রয়েছে প্রচুর পরিমাণে লবণ। মানুষের শরীরের রক্তে লবণের পরিমান একটা সাগরে থাকা লবনের সমান।

৪২) জন্মের সময় একজন মানুষের দেহে ১৪ বিলিয়ন কোষ থাকে। এই সংখ্যা কখনো বাড়ে না। ২৫ বছর বয়সের পর থেকে প্রতিদিন ১ লাখ করে কোষ কমতে থাকে। একটি বইয়ের এক পাতা পড়তে যে সময় লাগে, সে সময়ের মধ্যেই নষ্ট হয়ে যায় ৭০ টি কোষ। ৫০ বছরের পর থেকে মানুষের মস্তিষ্ক ছোট হয়ে যেতে থাকে।

৪৩) মানুষ রাতের থেকে সকালে তুলনামূলক বেশি লম্বা হয়ে যায়।

৪৪) মানুষের ডান ফুসফুস বাম ফুসফুসের চেয়ে বেশি বাতাস গ্রহণ করতে পারে।

৪৫) মানুষের শরীরের হৃদপিন্ডের প্রতিদিনের গড় রক্তসঞ্চালনের পরিমাণ ১০০০ বার।

৪৬) বসন্ত ঋতুতে শিশুদের বৃদ্ধি বেশি হয়।

৪৭) আমাদের চোখের পাপড়ির আয়ুকাল মাত্র ১৫০ দিন।

৪৮) মানুষের চোখের ভ্রুতে চুলের পরিমাণ প্রায় ৫০০-র মত।

৪৯) জন্মের সময় মানুষের চোখের আকার যেরকম থাকে, সারা জীবন সেরকমই থাকে। কিন্তু নাক ও কানের আকার বয়সের সাথে সাথে বৃদ্ধি পায়।

৫০) একজন মানুষের শরীরে গড় নার্ভের পরিমাণ গড়ে প্রায় একশো বিলিয়ন।

৫১) মানুষের দেহের সবচেয়ে ছোট হাড় হল কানের হাড়।

৫২) জার্মান গবেষকদের দেয়া তথ্যমতে, সপ্তাহের অন্য যেকোনো বারের তুলনায় সোমবারে হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা বেশি থাকে!

৫৩) গড়ে একজন মানুষ ২৪ ঘণ্টায় ৪৮০০ শব্দের ব্যবহার করে।

৫৪) মানুষের মুখেই কেবলমাত্র ৪০ হাজার ব্যাকটেরিয়া থাকে।

৫৫) জন্মের সময় একটি শিশুর দেহে প্রায় ৩০০ টির কাছাকাছি হাড় থাকে। প্রাপ্তবয়স্ক হতে হতে সে সংখ্যা নেমে দাঁড়ায় ২০৬ এ।

৫৬) উরুর পেশী আপনার শরীরের সবচেয়ে বড় পেশী।

৫৭) একজন প্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তির হৃদপিণ্ডের ওজন ২২০-২৬০ গ্রাম।

৫৮) মানুষের মুখ থেকে পেটে খাবার যেতে সময় লাগে মাত্র ৭ সেকেন্ড।

৫৯ ) একজন মানুষ তার গোটা জীবনকালে গড়ে প্রায় দুই সপ্তাহের সমপরিমাণ সময় চুমুর পেছনে ব্যয় করে।

৬০) স্বাভাবিক একজন মানুষ দৈনিক ছয়’বার মূত্রত্যাগ করেন।

৬১) পায়ের নখের চেয়ে হাতের নখ প্রায় চারগুণ দ্রুত বাড়ে।

৬২) জিভ শুধু স্বাদ গ্রহণ আর উচ্চারণে নয়, মানুষের শরীরের সবচেয়ে শক্তিশালী একটি পেশীও।

৬৩ ) দ্ভুত শোনালেও সত্য, দেয়ালের সাথে মাথা ঠোকার মাধ্যমে আপনি ঘণ্টায় ১৫০ ক্যালরি পর্যন্ত কমাতে পারবেন শরীর থেকে!

৬৪) জেনে অবাক হবেন যে, আমাদের শরীরের ভিতরের সমস্ত যন্ত্রাংশ কার্যক্রম সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে যায় যখন আমরা হাঁচি দিই। এমনকী,  আমাদের হৃদয়ও।

৬৫) মানুষের দৈহিক বৃদ্ধির একটি নির্দিষ্ট বয়সসীমা আছে। এ ধরণের কোন বয়সসীমা যদি না থাকত, আর জীবনের শেষ পর্যন্ত মানুষ বৃদ্ধি পেত, তবে একজনের চুলের দৈর্ঘ্যই হতো ৭২৫ কিলোমিটার রাস্তার সমান!

৬৬) মানুষের মাথার খুলি বিভিন্ন রকমের ২৬ টি হাড় দিয়ে তৈরি।

৬৭) ডানহাতি মানুষ বেশিরভাগ খাবার মুখের ডান পাশে চিবিয়ে থাকে, বাঁহাতি মানুষ বেশিরভাগ সময় চিবায় মুখের বাম পাশে।

৬৮) ছোটদের জন্য বসন্তকালটা অনেক গুরুত্বপূর্ণ কারণ তারা বসন্তকালে সময়ে সবচেয়ে বেশি বেড়ে উঠে।

৬৯) একজন মানুষের মাথায় প্রতিদিন প্রায় ১০০ টি নতুন চুল গজায়।

৭০) একজন মানুষের শরীরে হাড় জমাট বাঁধা কংক্রিটের চেয়ে অনেক বেশি শক্ত।

৭১) একটি চার বছরের বাচ্চা সারাদিনে গড়ে ৪৫০ টি প্রশ্ন করে থাকে।

৭২) আপনার শরীরের ওজনের ১% সমান পানি যখন আপনার দেহ থেকে বেরিয়ে যায়, তখন আপনার পানি তৃষ্ণা বোধ হয়। ৫% পানি বের হয়ে গেলে আপনি অজ্ঞান হয়ে যাবেন, আর ১০% পানি বের হলে ডিহাইড্রেশনের কবলে পরে মারা যাবেন।

৭৩) জীবনের শেষ পর্যায়ে এসে একজন ব্যক্তি গড়ে ১৫০ ট্রিলিয়ন টুকরো টুকরো তথ্য মনে করতে পারে।

৭৪) একজন স্বাভাবিক মানুষ দিনে ২৩ হাজার ৪০ বার শ্বাস প্রশ্বাস নিয়ে থাকে।

৭৫) বিশ্বের দুই তৃতীয়াংশ মানুষ চুমু খাওয়ার সময় নিজেদের মাথা অবচেতনেই ডান দিকে ঝোঁকায়।

৭৬) পুরুষের হৃদপিণ্ডের তুলনায় নারীর হৃদপিণ্ড দ্রুত সংকুচিত প্রসারিত হয়।

৭৭) আপনি এই বাক্যটি পড়তে পড়তেই আপনার দেহের ৫০ হাজার কোষ ধ্বংস হয়ে নতুন কোষ দ্বারা প্রতিস্থাপিত হয়ে গেছে।

৭৮) একটি সাধারণ মানবদেহে যে পরিমাণ কার্বন মজুদ থাকে তা দিয়ে ৯০০ টি পেন্সিল, যে পরিমাণ চর্বি জমা থাকে তা দিয়ে ৭ বার সাবান ও যে পরিমাণ পানি জমা থাকে তা দিয়ে ৫০ লিটার ব্যারেল ভর্তি করা যাবে।

৭৯) মানুষের মাথার খুলি ২৯ টি ভিন্ন ভিন্ন হাড় দিয়ে গঠিত।

৮০) নিজের স্মৃতিশক্তি সম্পর্কে সন্দিহান? তাহলে জেনে রাখুন, মানুষের মস্তিষ্কের স্মরণ রাখার ক্ষমতা একটি হার্ডডিস্কের ৪ টেরাবাইটের সমান।

৮১ ) মানুষের স্মৃতিশক্তির ধারণক্ষমতা যা হার্ড-ড্রাইভের চার টেরাবাইটের থেকেও বেশি ।

৮২ ) নবজাতক শিশু সাত মাস পর্যন্ত  খাবার গিলার সাথে সাথে শ্বাস প্রশ্বাস নিতে পারে।

৮৩ ) এই বাক্যটি পড়ার সময় আপনার দেহের ৫০ হাজারের মতো  সেলস মরে যাচ্ছে ! আবার একই সময়ে নতুন সেলস দ্বারা সেগুলো রিপ্লেস হচ্ছে।

৮৪) Hiccup বাংলায় আমরা যাকে হেঁচকি বলি, তা যতক্ষণ পর্যন্ত হতে থাকে কত বিরক্ত লাগে! Charles Osborne নামের একজন লোকের  ৬৮ বছর পর্যন্ত এই হেঁচকি উঠতে থাকে। উফফ! খুবই বিচিত্র এই মানব দেহ।

৮৫) মানব দেহের ‘বডি হিট’র শতকরা ৮০ ভাগই নির্গত হয় মাথা থেকে।

৮৬) পড়ে একটু অবাক লাগতে পারে যে কলা এবং আপেলের গন্ধ ওজন কমাতে সাহায্য করে।

৮৭) চোখের একটা পলক ফেলতে ০.৪ সেকেন্ড সময় লাগে।৭. দেহের সব শিরাকে পাশাপাশি সাজালে দেড় একর জমির প্রয়োজন হবে

৮৮) দেহে ও মনে অনুভূতি আসলে তা মস্তিষ্কে পৌঁছতে ০.১ সেকেন্ড সময় লাগে

৮৯) স্বাভাবিক ভাবে বেঁচে থাকলে মানুষ সাধারণত ২,৫০,০০,০০০ বার কাঁদে

৯০) মেয়েদের চেয়ে ছেলেদের নখ দ্রুত বাড়ে

৯১) একজন মানুষ প্রতিদিন ৬ ঘন্টা ঘুমালে সে যদি ৫০ বছর বাঁচে তবে তার জীবনের ১২.৫ বছর ঘুমের মধ্যে কাটায়।

৯২) একজন মানুষের শরীরে চামড়ার পরিমাণ হচ্ছে ২০ বর্গফুট।

৯৩) একস্থান থেকে শুরু করে সমগ্র শরীর ঘুরে ঐ স্থানে ফিরে আসতে একটি রক্ত কণিকা ১,০০,০০০ কিমি পথ অতিক্রম করে অর্থাত্‍ ২.৫ বার পৃথিবী অতিক্রম করতে পারে।

৯৪) মানুষের মস্তিস্কের গঠন বন্ধ হয়ে যায় ১৮ বছর বয়স থেকে।

৯৫) মানুষের মস্তিস্ক কখনোই বিশ্রাম করেনা, এটা ঘুমের মধ্যেও কাজ করতে থাকে।

৯৬) আমাদের মুখে যে কোন খাবারের স্বাদ ১০ দিন পর্যন্ত থাকে।

৯৭) প্রায় চল্লিশ মিনিট নিচ্ছিদ্র অন্ধকারে থাকার পর মানুষের চোখ আলোর প্রতি ২৫০০০ গুণ বেশি প্রতিক্রিয়াশীল হয়ে ওঠে।

৯৮) খালি চোখে মানুষ ২২ লক্ষ আলোক-বর্ষ দূরত্ব অবধি দেখতে পায়, অর্থাৎ ২.১ x ১০১৭ কিলোমিটার দূরের বস্তু। এই দূরত্ব অ্যালড্রোমিডা ছায়াপথের, যা আমাদের ছায়াপথের মতো কুণ্ডলিত, যদিও আয়তনে তার প্রায় দ্বিগুণ।

৯৯) মানবদেহের স্বাভাবিক তাপমাত্রা ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আর যেহেতু এত দুর চলেই এসেছেন তাই একটা বোনাস!

একজন মানুষের হাসিতে মুখের ১৭টি পেশিকে ‘ট্রিগার’ করে। অন্যদিকে কান্নায় ৪৩ টি পেশি সক্রিয় হয়ে উঠে। তাই আরও হাসুন।

ধন্যবাদ 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2019 a2zbangla.com
Customized BY A2zbangla